বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
55 জন দেখেছেন
"ঈমান" বিভাগে করেছেন (2,125 পয়েন্ট)

1 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (2,125 পয়েন্ট)
একথার দ্বারা যদি উদ্দেশ্য হয় যে, আপনার আগমণের কারণে আমরা বরকত লাভ করলাম, তাহলে অসুবিধা নেই। কারণ বরকতকে মানুষের দিকে সম্পৃক্ত করা জায়েয আছে। আয়েশা (রাঃ) এর গলার হার হারিয়ে যাওয়ার কারণে যখন তায়াম্মুমের আয়াত নাযিল হল, উসাইদ ইবনে হুজায়ের (রাঃ) বললেন, হে আবু বকর পরিবারের নারী! এটিই আপনাদের প্রথম বরকত নয়। বরকতের অনুসন্ধান দু’ভাবে হতে পারে।

১) শরীয়ত সম্মত বলে কোন জিনিষ থেকে বরকত হাসিল করাঃ যেমন আল-কুরআনুল কারীম। আল্লাহ বলেন,

)وَهَذَا كِتَابٌ أَنزَلْنَاهُ مُبَارَكٌ(

অর্থঃ এটি একটি বরকতময় কিতাব, যা আমি অবতীর্ণ করেছি। (সূরা আনআ’মঃ ৯২) কুরআনের বরকত হল, যে ব্যক্তি তাকে জীবন বিধান হিসাবে গ্রহণ করবে এবং কুরআন দিয়ে আল্লাহর পথে জিহাদ করবে, তার জন্য বিজয় অনিবার্য। এর মাধ্যমে আল্লাহ অনেক জাতিকে শির্ক থেকে মুক্তি দিয়েছেন। কুরআনের অন্যতম বরকত হল, যে ব্যক্তি কুরআনের একটি অক্ষর পাঠ করবে, সে দশটি নেকী অর্জন করবে।

২) বাহ্যিক কোন জানা জিনিষ থেকে বরকত হাসিল করাঃ যেমন দ্বীনি ইলম। কোন ব্যক্তির ইলম এবং কল্যাণের পথে দাওয়াত দেয়ার মাধ্যমে বরকত হাসিল করা। উসায়েদ ইবনে হুজায়ের বলেন, হে আবু বকরের বংশধর! এটিই তোমাদের প্রথম বরকত নয়। কেননা কোন কোন মানুষের হাতে এমন বরকত প্রকাশিত হয়, যা অন্যের হাতে প্রকাশিত হয়নি।

   মৃত ব্যক্তি বা মিথ্যুকদের কল্পিত ওলী থেকে বরকত লাভের ধারণা করা সম্পূর্ণ বাতিল। এর কোন অস্তিত্ব নেই। কখনো বরকতের নামে শয়তানের সহযোগীতায় ভন্ডরা মানুষকে গোমরাহ করার জন্য কিছু কিছু অলৌকিক কান্ড দেখিয়ে থাকে। সঠিক বরকত এবং ভন্ডামীর মধ্যে পার্থক্য করার মূলনীতি হল, যার কাছ থেকে কারামাত প্রকাশিত হল, তার ব্যক্তিত্বের দিকে দৃষ্টি দিতে হবে। সে যদি আল্লাহর ওলীদের অন্তর্ভুক্ত হয়ে থাকে, তাহলে অবশ্যই সুন্নাহর অনুসারী হবে এবং বিদ্‌আত হতে মুক্ত হবে, আল্লাহ তাঁর হাতে এমন বরকত প্রকাশ করবেন, যা অন্যের হাতে প্রকাশ করবেন না। আর যদি কুরআন্তসুন্নাহর বিরোধীতাকারী হয় অথবা বাতিলের দিকে আহবানকারী হয় এবং তা সত্বেও তার হাতে বাহ্যিকভাবে কোন ভাল জিনিষ প্রকাশিত হয়, তাহলে বুঝতে হবে এটি শয়তানের পক্ষ হতে বাতিলের সহযোগিতা মাত্র।



বিষয়/প্রশ্নঃ                (১০৮)
গ্রন্থের নামঃ              ফাতাওয়া আরকানুল ইসলাম
বিভাগের নামঃ          ঈমান
লেখকের নামঃ          শাইখ মুহাম্মাদ বিন সালিহ আল-উসাইমীন (রহঃ)
অনুবাদ করেছেনঃ     আবদুল্লাহ শাহেদ আল মাদানি - আবদুল্লাহ আল কাফী

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
23 জানুয়ারি 2014 "ঈমান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Rafia Begum (2,125 পয়েন্ট)
1 উত্তর
23 জানুয়ারি 2014 "ঈমান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Rafia Begum (2,125 পয়েন্ট)
1 উত্তর
23 জানুয়ারি 2014 "ঈমান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Rafia Begum (2,125 পয়েন্ট)

365,020 টি প্রশ্ন

460,728 টি উত্তর

144,451 টি মন্তব্য

192,217 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...