বিস্ময় অ্যানসারস এ আপনাকে সুস্বাগতম। এখানে আপনি প্রশ্ন করতে পারবেন এবং বিস্ময় পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের নিকট থেকে উত্তর পেতে পারবেন। বিস্তারিত জানতে এখানে ক্লিক করুন...
160 জন দেখেছেন
"আইন" বিভাগে করেছেন (10,983 পয়েন্ট)

1 উত্তর

0 টি পছন্দ
করেছেন (10,983 পয়েন্ট)
অপরাধের সহযোগী বলতে এমন ব্যক্তিকে বুঝায় যিনি প্রত্যক্ষভাবে কোন অপরাধজনক কার্যসম্পাদনে অপর আসামীর সাথে অংশগ্রহণ করেছেন বা সহযোগিতা করেছেন। অর্থাৎ যেই ব্যক্তি অপরাধজনক কার্যে আসামীকে সাহায্য বা সহযোগিতা করে তাকে দুষ্কর্মের সহযোগী বা অপরাধের সহযোগী বলে। যদিও সাক্ষ্য আইনে অপরাধের সহযোগীর কোন সংজ্ঞা প্রাদান করা হয় নাই, তবুও বিভিন্ন মামলার নজীরে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে যে, দুষ্কর্মদ্বারা অর্জিত সম্পত্তি যারা গ্রহণ করে (যেমন চোরাই মাল) তারাও দুষ্কর্মের সহযোগী বলে বিবেচিত হয়। যে ঘোষ খায় সে অপরাধী, যে ঘোষ দেয় সে সহযোগী অপরাধী। অপরাধ করার পুর্বে বা পরে যারা সহযোগিতা করে তারাও সহযোগী অপরাধী। তবে মৃত্যুর ভয় দেখিয়ে যাকে দিয়ে অপরাধমূলক কাজ করানো হয় তাকে অপরাধের সহযোগী বলা যায়না। তেমনি জোর করে ঘোষ আদায় করলে ঘোষ দাতাকে সহযোগী অপরাধী বলা যায় না।

সাক্ষ্য আইনের ১৩৩ ধারা মতে অপরাধের সহযোগী অপর সহ-আসামীর বিরুদ্ধে সাক্ষ্য দিতে পারে এবং তার সাক্ষ্যের ভিত্তিতে আসামীকে শাস্তি প্রদান করলে তা অবৈধ হবেনা। অর্থাৎ এখানে সহ-আসামী ফৌজদারী কার্যবিধির ৩৩৭ ধারা অনুযায়ী রাজসাক্ষী হিসাবে বিবেচিত হবে।

সম্পর্কিত প্রশ্নগুচ্ছ

1 উত্তর
1 উত্তর
19 এপ্রিল 2014 "বাংলা দ্বিতীয় পত্র" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন বিপুল রায় (25,547 পয়েন্ট)
1 উত্তর
1 উত্তর
10 মার্চ 2014 "প্রাণীবিজ্ঞান" বিভাগে জিজ্ঞাসা করেছেন Sanjoy (6,513 পয়েন্ট)

365,459 টি প্রশ্ন

461,193 টি উত্তর

144,592 টি মন্তব্য

192,491 জন নিবন্ধিত সদস্য

বিস্ময় বাংলা ভাষায় সমস্যা সমাধানের একটি নির্ভরযোগ্য মাধ্যম। এখানে আপনি আপনার প্রশ্ন করার পাশাপাশি অন্যদের প্রশ্নে উত্তর প্রদান করে অবদান রাখতে পারেন অনলাইনে বিভিন্ন সমস্যার সমাধানের জন্য সবথেকে বড় এবং উন্মুক্ত তথ্যভাণ্ডার গড়ে তোলার কাজে।
...