Posted By

হুট করে অ্যান্টিবায়োটিক খেয়ে দেহে মরন ফাঁদ তৈরি করছেন নাতো ?

Health 22

নতুন নতুন অ্যান্টিবায়োটিক উদ্ভাবনের পাশাপাশি অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার এতটাই বৃদ্ধি পেয়েছে যে সর্বস্তরের মানুষ এর সাথে পরিচিত।একজন মূর্খ ব্যক্তিও কমপক্ষে ১০-১৫ টা অ্যান্টিবায়োটিকের নাম জানে।কিন্তু সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে অ্যান্টিবায়োটিকের ভয়াবহতা।অতিমাত্রায় অ্যান্টিবায়োটিক খেয়ে দেহে মরণ ফাঁদ তৈরী করছেন না তো? 

 

আজকাল অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার এতটাই বৃদ্ধি পেয়েছে যে সামান্য জ্বর, ঠান্ডা,সর্দি, ডায়রিয়া তে বড় ধরণের অ্যান্টিবায়োটিক ব্যবহার করা হয়।মেট্রোনিডাজল, সিপ্রোফ্লক্সাসিন, এজিথ্রোমাইসিন, ফ্লুক্লক্সাসিলিন, পেনিসিলিন, সেফিক্সিম, সেফরাডিন, সেফুরক্সিম যেন ডাল-ভাতের মত ব্যবহার হয়।অথচ এ ধরণের উপসর্গে অ্যান্টিবায়োটিক ব্যবহারের সুপারিশ নাই। 

 

বাস্তব অভিজ্ঞতা : একদিন এক ফার্মেসিতে এক ব্যক্তি ঠান্ডা ও জ্বরের জন্য ঔষধ কিনতে গেলেন।ঐ ব্যক্তি ডাক্তার কে বলছে আমাকে ৩৫ টাকা দামের অ্যান্টিবায়োটিক দেন তা নাহলে আমার জ্বর সারবে না।উনি মাত্র দুই পিস এজিথ্রোমাইসিন ও সাথে কিছু সহযোগী ঔষধ নিয়ে চলে গেলেন।অথচ এজিথ্রোমাইসিন কখনো দুইটা ব্যবহারের নিয়ম নাই।কমপক্ষে ডোজ কমপ্লিট করে খেতেই হবে।অ্যান্টিবায়োটিকের এই মারাত্নক অপব্যবহার মানবদেহের জন্য মারাত্নক হুমকি। 

 

অ্যান্টিবায়োটিকের অপব্যবহার মরণফাঁদ : হ্যাঁ, সত্যি চিকিৎসা বিশেষজ্ঞদের মতে অ্যান্টিবায়োটিকের অপব্যবহার মরণফাঁদ।অ্যান্টিবায়োটিক ব্যাকটেরিয়া ও জীবাণু ধ্বংসে ব্যবহার করা হয়।যদি এর অপব্যবহার করা হয় তাহলে জীবাণু ধ্বংস তো দুরের কথা জীবাণুরা আরো অ্যান্টিবায়োটিক সহনীয় হয়ে যায়।তখন অ্যান্টিবায়োটিক জীবাণু ধ্বংসের সক্ষমতা হারিয়ে ফেলে।এই যে উপরে অ্যান্টিবায়োটিক অপব্যবহার সম্পর্কে একটা ঘটনা বলা হয়েছে।এ ধরণের মানুষদের ক্ষেত্রে অদুর ভবিষ্যতে অ্যান্টিবায়োটিক পর্যন্ত জ্বর ও ঠান্ডা প্রতিরোধ করতে ব্যর্থ হয়ে যাবে।কারণ উনি চরম মাত্রায় অ্যান্টিবায়োটিকের অপব্যবহার করছেন।তাই সময় থাকতে এখনি সচেতন হওয়া দরকার।

 

অ্যান্টিবায়োটিকের ব্যবহার সম্পর্কে সঠিক জ্ঞান রাখা দরকার।আর কখনো নিজে থেকে বা হাঁতুড়ে ডাক্তার কর্তৃক সাজেস্টকৃত অ্যান্টিবায়োটিক খাবেন না।অ্যান্টিবায়োটিক যেমন মানব দেহের ক্ষতি করে তেমনি অর্থনৈতিক ও ক্ষতি করে।তাই রেজিস্টার্ড/বিশেষজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া কখনো অ্যান্টিবায়োটিক নেওয়া উচিত নয়।সচেতনতাই সুন্দর জীবন দান করতে সক্ষম।

Topics: অ্যান্টিবায়োটিক উপকার অপকার স্বাস্থ্য

হুট করে অ্যান্টিবায়োটিক খেয়ে দেহে মরন ফাঁদ তৈরি করছেন নাতো ?

Login to comment login

Latest Jobs