রিয়াল মাদ্রিদের মুকুটহীন রাজার গল্প

Career 149

১৯৭৭ সালের ২৭ জুন স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদে জন্মগ্রহন করেন রাউল গঞ্জালেস ৷ ফুটবলের নগরী বললেও ভুল হবে মাদ্রিদকে ৷ এই নগরীতে জন্মানো রাউলের ছোট থেকেই ছিলো ফুটবলের প্রতি ভালোবাসা ৷ ছোট থেকেই রাউলের স্কিল ছিলো চোখে পড়ার মতো ছিলো ৷ এই খুদে ফুটবলাকে চোখে লেগে যায় একটি অখ্যাত ক্লাব স্যান ক্রিস্টোবেল এর ৷ মাত্র ১০ বছর বয়সে স্যান ক্রিস্টোবেল দলে ভেড়ান রাউলকে ৷ তিনবছর সেখানে খেলার পর ১৩ বছর বয়সে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদে যোগ দেন রাউল ৷ অ্যাটলেটিকোতে আসার মাত্র ২ বছর পর ফুটবলের ইতিহাসের অন্যতম সেরা ক্লাবটি রিয়াল মাদ্রিদ রাউলকে কিনে নেন ৷ রিয়াল মাদ্রিদ সি দল , বি দলে খেলার পর ১৭ বছর বয়সে রিয়াল মাদ্রিদের মূল দলে অভিষেক হয় রাউলের ৷ কৌশল, গোল করার অসামান্য দক্ষতা, নেতৃত্বগুণের জন্য রাউল ছিলো একজন অসাধারন ফুটবলার এবং ব্যক্তিত্ব ১৯৯৭-৯৮ , ১৯৯৯-২০০০ , ২০০১-০২ এই তিন মৌসুমে ৩টি চ্যাম্পিয়ান লীগ জেতার রিয়াল মাদ্রিদের অন্যতম কারিগর ছিলো রাউল ৷ রাউল রাউল গঞ্জালেস রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ৫টি লা লা লিগা , ২টি ইন্টারকন্টিনেন্টল কাপ , ৩টি সুপারকোপা দি স্পেনা , ১টি উয়েফা সুপার কাপ জয় করেন ৷ রিয়ালের আক্রমন ভাগের নেতৃত্ব সামনে থেকে দিতেন রাউল ৷ রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ৭৪১ টি ম্যাচ খেলে ৩২৩ টি গোল করেন ৷ একমাত্র সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি ভাঙ্গতে পারেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ৷ রাউল ছিলো মাদ্রিদিস্তাদের চোখের মণি ৷ এক অনুপ্রেরণার নাম ৷ তার মতো নম্র প্লেয়ার খুব কমই অাছে ৷ পুরো ক্যারিয়ার কোন লাল কার্ড পাননি রাউল ৷ ফেয়ার প্লে অ্যাওয়ার্ডের জন্য সবসময় রাউলের নাম ছিলো এগিয়ে সবসময় ৷ ১৯৯৮ ফিফা বিশ্বকাপ, ইউরো ২০০০, ২০০২ ফিফা বিশ্বকাপ, ইউরো ২০০৪ এবং ২০০৬ ফিফা বিশ্বকাপে স্পেনকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেন রাউল ৷ ২০১০ সালে রিয়াল মাদ্রিদ থেকে বিদায় নেন রাউল তারপর শালকে ০৪ , আল সাদ , নিউ ইয়র্ক কসমস থেকে ২০১৫ সালে অবসর নেন এই গ্রেট ৷মাদ্রিদিস্তারা আজিবন মনে রাখবে রাউল গঞ্জালেস , তাই তো মাদ্রিদিস্তারা ভালোবেসে নাম দিয়েছে রাউল মাদ্রিদ ৷ মাদ্রিদের মুকুটবিহীন রাজা রাউল গন্জালেস সবসময় অমর থাকবে সবাই মনে < গ্রেটের কিছু ব্যাক্তিগত অর্জন ------ ★লা-লিগা ব্রেক থ্রট প্লেয়ার : ১৯৯৪-৯৫ ★লা লিগা সেরা স্প্যানিশ প্লেয়ার : ১৯৯৬-৯৭ , ১৯৯৮-৯৯ , ১৯৯৯-২০০০ , ২০০১-০২ ★ইউরোপিয়ান স্পোর্টস ম্যাগাজিন টিম অফ দ্যা ইয়ার : ১৯৯৬-৯৭ , ১৯৯৮-৯৯ , ১৯৯৯-২০০০ ★ইন্টারকন্টিনেন্টল কাপ বেস্ট প্লেয়ার : ১৯৯৮ ★আই এফএফ এইচ এস ওয়ার্ল্ড টপ গোল ★স্কোরার অফ দ্যা ইয়ার : ১৯৯৯ ★তেলমে জারা ট্রফি : ১৯৯৫-৯৬ , ১৯৯৮-৯৯ ২০০০-০১ , ২০০২-০৩ ★পিচিস ট্রফি : ১৯৯৮-৯৯ ২০০০-২০০১ ★কোপা ডেলরে টপ স্কোরার : ২০০১-০২ ২০০৩-০৪ ★উয়েফা ইউরো কোয়ালিফাই টপ স্কোরার : ২০০০ ★ইউরো টিম অফ দ্যা টুনার্মেন্ট : ২০০০ ★উয়েফা চ্যাম্পিয়ান লিগ টপ স্কোরার : ১৯৯৯-২০০০ ২০০০-০১ ★উয়েফা ক্লাব ফরওয়ার্ড অফ দ্যা ইয়ার : ১৯৯৯-২০০০ , ২০০০-০১ , ২০০১-০২ ★ব্যালন ডি অর - সিলভার অ্যাওয়ার্ড : ২০০১ ★ফিফা ওয়ার্ল্ড প্লেয়ার্ড অফ দ্যা ইয়ার - ★ব্রোন্জ অ্যাওয়ার্ড : ২০০১ ★ডি স্টোফেনা ট্রফি : ২০০৭-০৮ ★গোল্ডেন্ট বুট অ্যাওয়ার্ড রানার্স আপ : ২০০৯ , ★২০১০ , ২০১১ ★মার্কা অ্যাওয়ার্ড : ২০০৯ ★গোল অফ দ্যা মান্থ (জার্মানি) : আগস্ট ২০১১ , ★মার্চ ২০১২ , এপ্রিল ২০১২ , জুলাই ২০১৩ ★গোল অফ দ্যা ইয়ার : ২০১১ , ২০১৩ ★ফেয়ার প্লে অ্যাওয়ার্ড (কাতার স্টার্স লিগ) : ২০১৫ ★এন এ এসএল প্লেয়ার অফ দ্যা মান্থ : মে ২০১৫

Topics:

রিয়াল মাদ্রিদের মুকুটহীন রাজার গল্প

Login to comment login

Latest Jobs