বাবা-মা যে ৭টি কাজ করবেন না

Fashion 28

একজন সন্তানের কাছে তার বাবা-মা পৃথিবীর সবচাইতে আপনজন, প্রিয়জন। বাবা-মা ছাড়া সন্তানের অস্তিত্ব কল্পনা করা যায় না। আবার যে কোন বাবা-মায়ের কাছে সন্তানই তাদের জীবন। আদরের সন্তানকে সঠিকভাবে বড় করার জন্য অনেক সময় বাবা-মা নিজের অজান্তেই কিছু কিছু ভূল করে থাকেন। যার কারণে সন্তানের সাথে তাদের দুরত্ব তৈরী হয়। সন্তানের সুরক্ষার কথা ভেবে আপনি এমন কোন কাজ করছেন না তো, যা আপনার সাথে সন্তানের দূরত্ব সৃষ্টি করছে। মিলিয়ে দেখুন তো এই কাজগুলো আপনিও করছেন কিনা আপনার সন্তানের সাথে!

 

১। সন্তানকে অবহেলা করা: ব্যস্ততার করণে অনেক বাবা-মায়েরা সন্তানকে সময় দিতে পারেন না। যা সন্তানের সাথে বাবা-মায়ের দূরত্ব তৈরী করে। তাই শত ব্যস্ততার মাঝেও সন্তানকে সময় দিন। সন্তানের ছোট ছোট কাজকে উৎসাহ দিন। কাজের ফলাফল যা-ই হোক না কেন প্রতিটি বাবা-মায়ের উচিত সন্তানকে ভাল কাজে উৎসাহ দেয়া, সাহায্য করা।

 

২। সন্তানের অতিরিক্ত সুরক্ষা: অবহেলার বিপরীত দিকটিই হল অতিরিক্ত সুরক্ষা। অবহেলা যেমন সন্তানের জন্য খারাপ, তেমনি অতিরিক্ত সুরক্ষার চেষ্টাও আপনার সন্তানের সাথে সম্পর্ক খারাপ করে দিতে পারে। বিশেষ করে সন্তান যখন টিনেজার। অতিরিক্ত সুরক্ষাকে তারা অবিশ্বাস বলে মনে করে। তারা মনে করে বাবা-মা তাদেরকে বিশ্বাস করে না।

 

৩। কথায় কথায় বিধি নিষেধ আরোপ: সন্তানকে অবশ্যই বিধি-নিষেধের মধ্যেই বড় করতে হয়। কিন্তু সেই বিধি-নিষেধ যেন মাত্রাতিরিক্ত না হয়ে যায়। এমন কোন বিধি-নিষেধ আরোপ করবেন না যা তার সৃজনশীলতাকে নষ্ট করে দেয়।

 

৪। সন্তানের মতামত গ্রহণ না করা: পরিবারে বিভিন্ন কাজে সন্তানের মতামত গ্রহন করা উচিত। এতে তারা নিজেদেরকে পরিবারের গুরুত্বপূর্ণ একজন সদস্য মনে করে। কিছু কিছু বাবা-মায়েরা তা করেন না। তারা মনে করেন সন্তানরা সিদ্ধান্ত গ্রহণের জন্য উপযুক্ত নয়।

 

৫। সন্তানের বন্ধু না হওয়া ঃ অনেক বাবা-মা মনে করেন সন্তানের সাথে কিছুটা সম্ভীরভাবে কথা বলা উচিত। এই কাজটি সন্তানের সাথে বাবা-মায়ের দূরত্ব তৈরী করে। সন্তানের সাথে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক তৈরী করুন। তাদের সাথে সময় কাটান, খেলা করুন, ঘুরতে নিয়ে যান। এই ছোট ছোট বিষয়গুলো আপনার সাথে সন্তানের সম্পর্ক আরও সুন্দর ও মজবুত করে তুলবে।

 

৬। সন্তানের সমালোচনা করা : অনেক বাবা-মা সন্তানের কাজের সমালোচনা করে থাকেন। তাদের কাজকে হাসি ঠাট্রা করেন। এই কাজগুলো সন্তানের মনে নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। এতে তারা তাদের চিন্তা ভাবনাগুলো অন্যের সামনে প্রকাশ করতে ভয় পায়, যার কারণে তারা হীনমন্যতায় ভোগে থাকে। এই ভয় বড় হলেও তাদের মধ্যে থেকে যায়।

 

৭। সন্তানের সামনে ঝগড়া করনে না : বাবা-মায়ের মধ্যে লেগে থাকা ঝগড়া সন্তানের উপর প্রভাব ফেলে। অনেক ভালো দম্পতিও সন্তানের সামনে ঝগড়া করার কারণে সন্তানের চোখে খারাপ বাবা-মা হিসেবে পরিগণিত হন এবং সন্তানের মধ্যে খারাপ ভাবমূর্তি তৈরী হয়। তাই সন্তানের সামনে ঝগড়া করা থেকে বিরত থাকুন। সন্তান লালন-পালন করা অনেক কঠিন একটি কাজ। আপনার ছোট ছোট কাজও সন্তানের কাছে আপনার ভাবমূর্তি খারাপ করে দিতে পারে। একটু সচেতনতা ভালোবাসা আর অনেকখানি বিশ্বাস আপনাকে আপনার সন্তানের কাছে পৃথিবীর সেবা বাবা-মা করে তুলবে। ধন্যবাদ।

 

অধ্যক্ষ আলাউদ্দিন আল-আজাদ

 

Topics:

বাবা-মা যে ৭টি কাজ করবেন না

Login to comment login

Latest Jobs