Posted by

বাসক এর গুণাবলী

Health 9

এই আধুনিক যুগেও ভেষজ চিকিৎসায় বাসক পাতারও অবদানও রয়েছে অনেক-

১। ১ থেকে ২ চা-চামচ বাসক পাতার রস ও এক চামচ মধুসহ খেলে শিশুর সর্দিকাশির উপশম হয়।২। প্রসরাবের জ্বালা যন্ত্রনা থাকলে, ২ থেকে ৩ চা-চামচ বাসকের ফুল বেটে তাতে ১ থেকে ২ চা-চামচ মিছরি মিশিয়ে শরবত করে খেলে এই রোগে উপকার পাওয়া যায়।

৩। জ্বর হলে বা অল্প জ্বর থাকলে, ৫ থেকে ১০ গ্রাম বাসকের মূল ধুয়ে থেঁতো করে ১০০ মিলি লিটার জলে ফুটিয়ে, ২৫ মিলি লিটার থাকতে নামিয়, তা ছেঁকে নিয়ে দিনে ২ বার করে খেলে জ্বর এবং কাশি দুই'ই চলে যায়।

৪। ১০ থেকে ১২টি বাসকের কচিপাতা ও এক টুকরা হলুদ একসঙ্গে বেটে দাদ বা চুলকানিতে লাগালে কয়েকদিনের মধ্যে তা সেরে যায়।

৫। ১ থেকে ২ চা-চামচ বাসক পাতা বা ফুলের রস, ১ চা-চামচ মধু বা চিনি মিশিয়ে শরবত করে প্রতিদিন খেলে জন্ডিস রোগে উপকার পাওয়া যায়।

৬। পাইরিয়া বা দাঁতের মাড়ি দিয়ে রক্ত পড়লে ২০ টি বাসক পাতা থেঁতো করে, ২ কাপ জলে সিদ্ধ করে, ১ কাপ থাকতে নামিয়ে ঈষদুষ্ণ অবস্থায় কুলকুচি করলে এই রোগে উপকার পাওয়া যায়।

Topics: বাসক এর গুণাবলী সাস্থ কথা ভেষজ চিকিৎসা ঘরের ঔষধ বাসক

বাসক এর গুণাবলী

Login to comment Login

You're not logged-in.

Login  — or —  Create Account
Latest Jobs

ক্লোজউই বাংলাদেশে তৈরি